৯ ডিসেম্বর, ২০২০ ০৭:১৫

যেভাবে সুন্দরবনের খাঁটি মধু বলে ভেজাল মধু বিক্রি!

নিজস্ব প্রতিবেদক

ভেজাল মধু বিক্রির দায়ে সুন্দরবন অধ্যুষিত জেলা সাতক্ষীরায় এক ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ ওই ব্যবসায়ীর নাম আব্দুর রাজ্জাক (৪৫)

আজ বুধবার বেলা ৩টার দিকে তাকে জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার ভাড়াশিমলা ইউনিয়নের ব্রজপাটুরিয়া গ্রামে অভিযান চালিয়ে ৮০ কেজি ভেজাল মধুসহ তাকে আটকের পর ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে তিনি ওই গ্রামের আবুল কাশেম কারিগরের ছেলে

তবে অভিযুক্ত আব্দুর রাজ্জাকের দাবি, ওই মধু ভেজাল কিনা, তা তিনি জানেন না

তিনি বলেন, ‘শ্যামনগর উপজেলার সুন্দরবন উপকূলীয় ছোট ভেটখালী এলাকার বেয়াইয়ের কাছ থেকে গত এক মাস আগে থেকে মধু নিয়ে ব্যবসা শুরু করেছি মধু এনে এলাকার বিভিন্ন মানুষের কাছে বিক্রি করি এটি ভেজাল মধু কিনা আমি জানি না

ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট কালীগঞ্জ উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাজিবুল আলম জানান, দুটি প্লাস্টিকের কন্টেইনারে ৮০ কেজি মধুসহ আব্দুর রাজ্জাককে আটক করা হয়েছে পরীক্ষা করে দেখা গেছে মধুগুলো ভেজাল ভেজাল মধু বিক্রেতা আব্দুর রাজ্জাককে ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে

তিনি বলেন, কালীগঞ্জের দোকানে দোকানে যারা ভেজাল মধু বিক্রি করেন তাদের জন্য সর্তকর্তা বার্তা হলো, ভেজাল মধু বিক্রি করলে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে সুন্দরবনের খাঁটি মধুর দাম বেশি হওয়ায় অসাধু ব্যবসায়ীরা বেশী লাভের আশায় ভেজাল মধুকে সুন্দরবনের মধু বলে বিক্রি করেন এই চক্রের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে

 


আরো খবর