বিনোদন ২৬ জানুয়ারি, ২০২১ ০৩:৩৩

কত ছিল ঐশ্বরিয়ার স্বর্ণখচিত বিয়ের শাড়ির দাম

বিনোদন ডেস্ক

১৪ বছর পরেও বলিউডের প্রভাবশালী কাপল অভিষেক বচ্চন ও ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চন। বিয়ে নিয়ে বলিউডের আগ্রহের কমতি নেই। ওই সময়ে মানুষ ঘরে বসে টেলিভিশনের পর্দায় দেখেছিলেন বর-কনের রাজকীয় আয়োজন। এরপর বহু বছর ধরে তাঁদের বিয়ে আলোচনায়।

আজও অনেকের মনে পড়বে। সাবেক বিশ্বসুন্দরীর পরনে ঐতিহ্যিক কাঞ্জিভরম শাড়ির কথা। আর রাজপুত্রের সাজে অভিষেকের কথা।

২০০৭ সালের ২০ এপ্রিল। এ দিন ঐশ্বরিয়া ও অভিষেক বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়ে ভারতবাসীকে চমকে দিয়েছিলেন। এ দম্পতির ভক্তদের সংখ্যা অসীম। এরপর ২০১১ সালে তাঁদের কোলজুড়ে আসে কন্যাসন্তান, নাম আরাধ্যা বচ্চন।

ঐশ্বরিয়া ও অভিষেকের বিয়ের দিনে ফিরে গেলে বলা যায়, ভারতের অন্যতম বড় বিবাহোৎসব ছিল সেটি। আর ঐশ্বরিয়ার অন্যতম ব্যয়বহুল ওয়েডিং লুক দেখে চোখ কপালে উঠেছিল ভারতবাসীর। জেনে নিন, ওই দিন ঐশ্বরিয়া পরেছিলেন সুন্দর সোনালি কাঞ্জিভরম শাড়ি ও ঐতিহ্যিক অলংকার, যা ঐশ্বরিয়ার লুককে করেছিল অপ্সরার মতো। আর শাড়ির দাম বলার আগে জানা জরুরি, কে ছিলেন সেই মাস্টারপিসের ডিজাইনার? হ্যাঁ, ওই গর্জিয়াস বিয়ের শাড়ি তৈরি করেছিলেন ফ্যাশন ডিজাইনার নীতা লুল্লা। স্বর্ণের পাড় আর দামি পাথরখচিত ছিল সেই শাড়ি। গেল বছর ভারতীয় সংবাদ সংস্থার এক প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছিল, সত্যিকারের স্বর্ণ দিয়ে মোড়া ছিল শাড়িটি, সঙ্গে প্রচুর দামি পাথর। আর সেই শাড়িটির দাম ছিল ৭৫ লাখ রুপি এবং এটিই তখন ছিল সবচেয়ে দামি শাড়ি। আর অভিষেক পরেছিলেন সাদা শেরওয়ানি, সত্যিকারের স্বর্ণের কাজ ছিল তাতে।