আন্তর্জাতিক ২০ জুন, ২০২৩ ১২:২৪

ধ্বংসাবশেষ টাইটানিক দেখতে ৫ যাত্রী সাবমেরিনে, অতঃপর নিখোঁজ

ছবি - সংগৃহীত

ছবি - সংগৃহীত

আমাদের কাগজ ডেস্ক: অ্যাটলান্টিক মহাসাগরে ডুবে যাওয়া টাইটানিক জাহাজের ধ্বংসাবশেষ দেখতে গিয়ে ‘টাইটান সাবমার্সিবল’ নামের একটি পর্যটকবাহী সাবমেরিন নিখোঁজের ঘটনা ঘটেছে। যা দেখতে পর্যটকদের গুনতে হয় আড়াই লাখ ডলার। সোমবার (১৯ জুন) এত প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

বিবিসি বলছে, ওশানগেট কোম্পানির ওই ট্যুরিস্ট সাবমেরিনটিতে পাঁচজন যাত্রী ছিলেন। এর মধ্যে ৫৮ বছর বয়সী ব্রিটিশ ধনকুবের ব্যবসায়ী এবং অভিযাত্রী হ্যামিশ হাডিং রয়েছেন। হারিয়ে যাওয়া ডুবোজাহাজটির নাম ‘টাইটান সাবমার্সিবল’। সাবমেরিনটির সন্ধানে তল্লাশি ও উদ্ধার অভিযান শুরু হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্র কোস্ট গার্ডের রিয়ার অ্যাডমিরাল জন মাউগের বলেন, পর্যটকদের জীবিত খুঁজে বের করতে হলে তাদের হাতে ২৬ ঘণ্টার মতো সময় রয়েছে। দুটি বিমান, একটি সাবমেরিন এবং সনার যন্ত্র নিয়ে সাবমেরিনটি খোঁজা হচ্ছে। উদ্ধারকারীরা এই অভিযানকে অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে নিয়েছেন এবং নিখোঁজ পর্যটকদের নিরাপদে বাড়ি ফিরিয়ে আনতে সাধ্যের মধ্যে থাকা সবকিছুই করা হচ্ছে।

টাইটানিকের ধ্বংসাবশেষ দেখাতে ছোট ছোট ডুবোযানে করে পর্যটকদের আটলান্টিক মহাসাগরের সাড়ে ১২ হাজার ফুট গভীরে নিয়ে যাওয়া হয়। আট দিনের এই ভ্রমণের জন্য পর্যটকদের ব্যাপক সাধণাও করতে হয়। কারো বা জীবনের শেষ ইচ্ছেও এটি। 

উল্ল্যেখ্য, ১৯১২ সালে উত্তর অ্যাটলান্টিক মহাসাগরে ডুবে যাওয়া টাইটানিক এটি। 

আমাদেরকাগজ/এমটি