আইন ও আদালত ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০২৩ ০২:১৮

হাইকোর্টে জামিন পেলেন রিজেন্টের সাহেদ 

আমাদের কাগজ ডেস্ক : অবৈধ সম্পদ অর্জনের মামলায় হাইকোর্টে জামিন পেলেন রিজেন্ট হাসপাতাল লিমিটেডের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সাহেদ। আজ (বৃহস্পতিবার) বিচারপতি মো. আখতারুজ্জামানের একক বেঞ্চ আবেদনটি শোনার পর ৬ মাসের জামিন মঞ্জুর করেন।  এর আগে, তাকে দুর্নীতি মামলায় তিন বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছিল। 

এর আগে ৪ সেপ্টেম্বর এ মামলায় তার আপিল শুনানির জন্য গ্রহণ করেছিলেন হাইকোর্ট।  

গত ২১ আগস্ট ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৭ এর বিচারক প্রদীপ কুমার দুর্নীতি মামলার রায় দেন।

রায়ে এক লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। সাহেদের বিরুদ্ধে দুটি অভিযোগ গঠন করা হলেও ২০০৪ সালের দুদক আইনের ২৬ এর ২ ধারায় দণ্ডিত হন সাহেদ। তবে ২৭ এর ১ ধারায় অভিযোগ প্রমাণ না হওয়ায় তাকে খালাস দেওয়া হয়।

মামলার কাগজপত্রের তথ্য বলছে, ২০২০ সালের ৫ নভেম্বর দুদক এক নোটিশে সাহেদকে ২১ কার্যদিবসের মধ্যে তাঁর সম্পদের হিসাব জমা দিতে বলে। কিন্তু সাহেদ নির্ধারিত সময়ে তাঁর সম্পদের বিবরণী জমা দেননি। পরবর্তী সময়ে সাহেদকে আরও ১৫ কার্যদিবস সময় দেওয়া হয়। এরপরও তিনি তাঁর সম্পদের বিবরণী জমা দেননি। এমন প্রেক্ষাপটে অনুসন্ধানের পর সাহেদের বিরুদ্ধে ২০২১ সালের ১ জানুয়ারি মামলা করে দুদক।

রিজেন্ট হাসপাতালে করোনার নমুনা পরীক্ষায় জালিয়াতির মামলায় ২০২০ সালের ১৫ জুলাই সাহেদকে অবৈধ অস্ত্রসহ সাতক্ষীরার সীমান্ত এলাকা থেকে গ্রেপ্তারের কথা জানায় র‍্যাব।

পরে আদালতের অনুমতি সাপেক্ষে পুলিশের গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) সাহেদকে সঙ্গে নিয়ে রাজধানীর উত্তরা পশ্চিম থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে একটি পিস্তল ও মাদক উদ্ধার করে।

আমাদেরকাগজ/এমটি