বিজ্ঞান ও তথ্য প্রযুক্তি ২১ নভেম্বর, ২০১৯ ০৫:১৮

যে মেইল এখন ‘ভয়ংকর’

ডেস্ক রিপোর্ট।।

বিশ্বজুড়ে সাইবার হামলার প্রকোপ বাড়ছে। এ সময় তাই ব্যক্তিগত তথ্য সুরক্ষা রাখা জরুরি। যাঁদের অন্তত ইন্টারনেটে অস্তিত্ব আছে এবং ই–মেইল ঠিকানা আছে, তাঁদের মাইক্রোসফটের ছদ্মবেশে পাঠানোর একটি বার্তা সম্পর্কে সতর্ক করছেন সাইবার নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞরা।

ট্রাস্টওয়েভ স্পাইডারল্যাবের গবেষকেরা সম্প্রতি ক্ষতিকর প্রোগ্রামযুক্ত একটি ফিশিং লিংক বা প্রতারণামূলক লিংকের খোঁজ পেয়েছেন, যা উইন্ডোজ ১০ আপডেট বা হালনাগাদ করার পরামর্শ দিয়ে পাঠানো হয়।

গবেষকেরা বলেন, ই–মেইলে দ্রুত ছড়াচ্ছে উইন্ডোজ ১০ হালনাগাদ করার তাগাদা দিয়ে আসা একটি মেইল। এটি মূলত প্রতারণা ও ভাইরাসযুক্ত মেইল। এতে ক্লিক করলে বিপদ। এটি র‍্যানসমওয়্যার হিসেবে কম্পিউটারের সব ফাইল দখল করে ব্ল্যাকমেল করতে পারে। এমনকি অর্থ দাবিও করতে পারে। প্রযুক্তিবিষয়ক ওয়েবসাইট টেকরাডার বলছে, মাইক্রোসফটের ছদ্মবেশে পাঠানো মেইলটি মূলত সাইবর্গ র‍্যানসমওয়্যারযুক্ত।

কেউ যদি ই–মেইল ‘ইনস্টল লেটেস্ট মাইক্রোসফট উইন্ডোজ আপডেট নাউ!  বা ক্রিটিক্যাল মাইক্রোসফট উইন্ডোজ আপডেট নামে মেইল পাঠায়, তবে তাতে ক্লিক করবেন না। এটি ক্লিক করে খুলে ফেললেও পুরো সিস্টেমকে র‍্যানসমওয়্যার থেকে বাঁচানোর আরেকটি উপায় রয়েছে। ওই মেইলের কনটেন্টে মাত্র একটি লাইনে লেখা থাকতে পারে মেইলের সঙ্গে অ্যাটাচমেন্টে যুক্ত রয়েছে উইন্ডোজের আপডেট। ভুলেও ওই অ্যাটাচমেন্ট ডাউনলোড করবেন না। ভুয়া ওই অ্যাটাচমেন্টটি জেপিজি ফরম্যাটে পাঠানো হয়। এর মধ্যে লুকানো থাকে ক্ষতিকর ডটনেট এক্সিকিউটেবল ফাইল। এর মাধ্যমে ডিভাইসে ম্যালওয়্যার ঢুকে পড়ে।

কেউ যদি অ্যাটাচমেন্টে ক্লিক করে বসে তবে ‘বিটকয়েন জেনারেটর ডট ইএক্সসি’ ফাইল সিস্টেমে ঢুকে পড়ে। এটি মূলত সাইবর্গ র‍্যানসমওয়্যার নামে পরিচিত। এটি সিস্টেমের সব ফাইলকে ট্রিপল সেভেন (777) এক্সটেনশন দিয়ে এনক্রিপ্ট করে ফেলে। আক্রান্ত ওই ফাইল খুলতে পরে একটি র‍্যানসম নোট দেখাতে থাকে। অর্থাৎ অর্থ পরিশোধ করা না হলে সিস্টেম আটকে রাখার সুযোগ পায় সাইবার দুর্বৃত্তরা।

ব্যবহারকারীদের মনে রাখতে হবে, মাইক্রোসফট কখনো উইন্ডোজ ১০ আপডেট করার জন্য মেইল পাঠায় না। হালনাগাদ সফটওয়্যার সম্পর্কে জানাতে অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করে মাইক্রোসফট।