বিজ্ঞান ও তথ্য প্রযুক্তি ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০৪:৫৮

ফেইসবুককে ফিলিপিন্সের প্রেসিডেন্ট: তোমার উদ্দেশ্য কী?

নিজস্ব প্রতিবেদক

 

ফেইসবুকের উপর চটেছেন ফিলিপিন্সের প্রেসিডেন্ট রডরিগো দুতার্তে। সম্প্রতি সম্প্রচারিত ভাষণে ফেইসবুককে এক হাত নিয়েছেন তিনি। দুতার্তে বলছেন, ফেইসবুক তার সরকারের লক্ষ্য প্রচারণা থামাতে পারবে না

সোমবার সম্প্রচারিত এক ভাষণে দুতার্তে বলেছেন, “ফেইসবুক, আমার কথা শোনো। তুমি আমাদেরকে সাহায্য করবে, সে আশায় তোমাকে এখানে কার্যক্রম পরিচালনার অনুমোদন দেই আমরা। এখন, সরকার যদি মানুষের জন্য ভালো হবে এমন কিছু সমর্থন না করতে পারে, অঙ্গীকারবদ্ধ না হতে পারে, তাহলে আমার দেশে তোমার উদ্দেশ্যটা কী?”

সেপ্টেম্বরের ২২ তারিখে ফিলিপিন্স ও চীন থেকে তৈরি হয়েছে এমন ভুয়া অ্যাকাউন্টের নেটওয়ার্ক সরিয়েছে ফেইসবুক। ওই নেটওয়ার্কের মধ্যে ‘কমিউনিস্ট পার্টি অফ ফিলিপিন্স’, এবং এ দলটির সশস্ত্র বাহিনী ‘নিউ পিপলস আর্মি’র (এনপিএ) সমালোচনা করেছে এমন অ্যাকাউন্টও রয়েছে। দুতার্তে মূলত এ কারণেই ফেইসবুকের উপর চটেছেন

রয়টার্স জানিয়েছে, ওই অ্যাকাউন্টগুলোর সঙ্গে ফিলিপিন্সের সামরিক বাহিনী ও পুলিশের সংশ্লিষ্টতা খুঁজে পেয়েছে ফেইসবুক। তবে, এ ব্যাপারটি স্বীকার করেনি দেশটির সামরিক ও পুলিশ বাহিনী।     

পরে দেশটির সামরিক বাহিনী জানিয়েছে, কমিউনিস্টদের লোক সংগ্রহ বিষয়ে জনসচেতনতা তৈরি করছিলো অভিভাবকদের তৈরি এমন পেইজ আদতে ফেইসবুক মুছে ফেলার সিদ্ধান্তে দুঃখ পেয়েছেন তারা। সামরিক বাহিনীর ভাষ্যে, সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ‘হ্যান্ডস অফ আওয়ার চিলড্রেন” নামের ফেইসবুক পেইজটি খুলেছিলেন মা-বাবাদের একটি দল

ওই পেইজটি ফিরিয়ে দেওয়া যাবে কি না, সে ব্যাপারেও খোঁজ নিয়েছিলো ফিলিপিন্সের সশস্ত্র বাহিনী। তাদের মুখপাত্র জানিয়েছেন, এটি এমন একটি বিষয়কে সমর্থন করে যা সামরিক বাহিনীও “সমর্থন করে, এবং এগিয়ে নিতে চায়।”    

ফিলিপিন্সে সরকার দল ও এনপিএ’র মধ্যে দ্বন্দ্ব চলছে বহু দিন ধরেই। ১৯৬৮ সাল থেকে চলমান এ দ্বন্দ্বে মারা গেছেন লাখো মানুষ

তোমরা যদি আমাদের সাহায্য না-ই করতে পারো, তাহলে তোমাদেরকে চলতে দেওয়ার অনুমোদন দিয়ে কী লাভ? আমরা ব্যাপক ধ্বংসকে সমর্থন করছি না, আমরা গণহত্যাকে সমর্থন করছি না। এটি ধারণার লড়াই।” – বলেছেন ফিলিপিন্সের প্রেসিডেন্ট দুতার্তে

তিনি আরও বলেছেন, “যদি তোমরা বিদ্রোহীদের মতবাদ প্রচার করো… যদি তোমরা নিজেদের লক্ষ্য কী ছিলো বা আছে, তা ভুলে গিয়ে থাকো, তাহলে আমাদের আলোচনায় বসা প্রয়োজন।”               

রয়টার্স লিখেছে, এর আগে ফিলিপিন্সে রডরিগো দুতার্তের দৃঢ় সমর্থক ঘাঁটি গড়ে তুলতে, এবং ২০১৬ সালে তাকে নির্বাচনে জেতাতে ভূমিকা রেখেছে ফেইসবুক

আর তাই হয়তো দুতার্তে বলেছেন, “ফেইসবুকের বাদেও কী কোনো জীবন রয়েছে? আমি জানি না।”

ফেইসবুক জানিয়েছে, “সমন্বিত কৃত্রিম আচরণে” জড়িত হওয়ার কারণেই ওই ভুয়া অ্যাকাউন্টগুলো মুছে দিয়েছে তারা